অ্যালোভেরা | এলোভেরার উপকারিতা | aloe vera benefits in Bangla

আসসালামু আলাইকুম প্রিয় দর্শক, আজকে আলোচনা করবো এলোভেরার উপকারিতা | aloe vera benefits in Bangla নিয়ে ৷ অ্যালোভেরা এমনই একটি ঔষধি গাছ, যার রয়েছে অসংখ্য উপকারিতা। আপনি নিশ্চয়ই কিছু উপকারিতা সম্পর্কে অবগত আছেন, কিন্তু খুব কম লোকই সেই উপকারিতা সম্পর্কে জানেন যা আজ আমরা আপনাকে সচেতন করব। এলোভেরার উপকারিতা সম্পর্কে জানতে আমাদের সাথেই থাকুন ৷

অ্যালোভেরা | aloe vera

aloe vera benefits in Bangla

প্রসাধনী জেল এবং স্বাস্থ্যের জগতে অ্যালোভেরা বা ঘৃতকুমারী একটি পরিচিত নাম। অ্যালোভেরার বৈজ্ঞানিক নাম Aloe vera. এটি ক্যাকটাস প্রজাতির একটি উদ্ভিদ, যা গরম ও শুষ্ক আবহাওয়ায় জন্মে থাকে। এটি টেক্সাস, নিউ মেক্সিকো, অ্যারিজোনা এবং ক্যালিফোর্নিয়ার দক্ষিণ সীমান্ত অঞ্চলে ব্যাপকভাবে চাষ করা হয়। এটি বহু বছর ধরে আয়ুর্বেদিক ওষুধ তৈরিতে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। অ্যালোভেরা জেল আমাদের রোদে পোড়া থেকে রক্ষা করতে এবং ক্ষত সারাতে সাহায্য করে। কিন্তু আপনি কি জানেন যে আপনার প্রিয় গাছটি আরও অনেক উপকারের জন্য ব্যবহার করা যেতে পারে?
আয়ুর্বেদের অনেক চিকিৎসক একে সঞ্জীবনী উদ্ভিদও বলে থাকেন। আয়ুর্বেদে, এটিকে অ্যালোভেরার আকারে মহারাজের স্থান দেওয়া হয়েছে এবং চিকিৎসা জগতে এটিকে সঞ্জীবনীও বলা হয়। এটির 200টি প্রজাতি রয়েছে, তবে প্রথম ৫টিই মানবদেহের জন্য উপযোগী। যার মধ্যে বার্না ডেনসিস নামের প্রজাতিটি প্রথম স্থানে রয়েছে।

Also Link: ফল খাওয়ার উপকারিতা বা প্রয়োজনীয়তা

এলোভেরার উপকারিতা | aloe vera benefits in Bangla

1. ডায়াবেটিস প্রতিরোধে এলোভেরার উপকারিতা

প্রতিদিন দুই টেবিল চামচ অ্যালোভেরার জুস খেলে তা রক্তে চিনির মাত্রা কমাতে সাহায্য করে। অর্থাৎ ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে ব্যবহার করতে পারেন। আপনি এটি জুসের সাথে মিশিয়ে বা জলের সাথে খেতে পারেন। অ্যালোভেরা রক্তে শর্করার মাত্রা কমাতে সাহায্য করবে। এতে রয়েছে গ্লুকোম্যানান যা রক্তে শর্করার মাত্রা কমায়। তাজা সজ্জা থেকে জুস তৈরি করার চেষ্টা করুন, এটি আপনাকে বাজারের রাসায়নিকযুক্ত ক্যামিকেল থেকে রক্ষা করবে।

2. কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তি

অ্যালোভেরার/ aloe vera জুস পান করলে পাকস্থলী ও অন্ত্রের জ্বালা কমাতে সাহায্য করে। অ্যালোভেরার রেচক বৈশিষ্ট্য রয়েছে, যা পেট পরিষ্কার করে এবং আপনাকে কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তি দেবে। এছাড়াও এতে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার থাকে, যা খাবার সঠিকভাবে হজম করতে কাজ করে। আপনার যদি ঘন ঘন কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা থাকে, তাহলে প্রতিদিন দুই টেবিল চামচ অ্যালোভেরার জুস খান, এটি হজম প্রক্রিয়ার উন্নতি ঘটায় এবং অন্ত্রের ভালো ব্যাকটেরিয়া সুস্থ রাখতে কাজ করে। আপনি ঘরেই তাজা অ্যালোভেরা থেকে জুস তৈরি করতে পারেন।

3. ত্বক এবং চুলের যত্ন

অ্যালোভেরা রক্ত ​​সঞ্চালন বাড়াতে কার্যকর। আপনি যখন এটি আপনার চুলে বা মাথার ত্বকে ব্যবহার করেন, এটি সেখানে রক্ত ​​সঞ্চালন বাড়ায়। এতে চুলের বৃদ্ধি বাড়ে। এর সঙ্গে নতুন চুলও দ্রুত আসে।

ত্বক পরিষ্কার ও হাইড্রেটেড রাখতে এবং চুল পড়া ও শুষ্কতা রোধ করতে অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করা যেতে পারে। ৯৬% জল এবং টন অ্যামিনো অ্যাসিড সমৃদ্ধ, এই স্বচ্ছ জেলটিতে ভিটামিন এ, বি, সি এবং ই রয়েছে, যা আপনার শরীর, ত্বক এবং চুলের জন্য প্রয়োজনীয় পুষ্টি সরবরাহ করে। অ্যালোভেরা মাথার ত্বকের সিবাম উৎপাদন এবং পিএইচ স্তরের ভারসাম্য বজায় রাখে। যার কারণে চুল পড়া কমে এবং চুলের বৃদ্ধি বাড়ে। এটি ত্বককে ময়েশ্চারাইজড এবং হাইড্রেটেড রাখে। আপনি সরাসরি চুল এবং ত্বকে বা ভিটামিন ই তেল যোগ করে অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করতে পারেন। তাছাড়া অ্যালোভেরা aloe vera জেল বা জুস মেহেদির সঙ্গে মিশিয়ে চুলে লাগালে চুল ঝলমলে ও স্বাস্থ্যবান হবে।

4. রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

অ্যালোভেরাতে উপস্থিত ব্র্যাডিকিনেস রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে উদ্দীপিত করে এবং সংক্রমণ মেরে ফেলে। অ্যালোভেরাতে জিঙ্কও রয়েছে, যা আমাদের রোগ প্রতিরোধ করতে, ব্যাকটেরিয়া মেরে ফেলতে এবং আমাদের কোষের ঝিল্লির কার্যকারিতা রক্ষা করতে সাহায্য করে। যেখানে এটি পাইলস, ডায়াবেটিস, জরায়ুর রোগ, পেট খারাপ, জয়েন্টে ব্যথা, ত্বকের সমস্যা, ব্রণ, শুষ্ক ত্বক, রোদে পোড়া ত্বক, বলিরেখা, মুখের দাগ, চোখের চারপাশে কালো দাগ, গোড়ালি ফাটা ইত্যাদি দূর করে। রক্তের অভাব এবং শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

5. ওজন কমাতে

এলোভেরার/ aloe vera ওজন কমাতে গুরুত্ত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে ৷ আপনি যদি ওজন কমাতে চান, তাহলে সঙ্গে নিন অ্যালোভেরা! এতে রয়েছে প্রোটিন, ভিটামিন এবং অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, যা শরীরকে ডিটক্স করতে সাহায্য করে। সকালে এক গ্লাস হালকা গরম পানিতে 2 টেবিল চামচ অ্যালোভেরার রস এবং 1 টেবিল চামচ আমলার রস মিশিয়ে নিন। এটি খাওয়ার পর প্রায় এক ঘন্টা কিছু খাবেন না। এটি লেবুর রসের সাথেও খাওয়া যেতে পারে। এবং আপনি অ্যালোভেরা এবং আদা চা তৈরি করে পান করতে পারেন। এতে আপনার ওজন দ্রুত কমবে।

6. মাউথওয়াশ (মুখের দূর্গন্ধ ও দাঁতের ক্ষয় রোধ করে)

ইথিওপিয়ান জার্নাল অফ হেলথ সায়েন্সে প্রকাশিত 2014 সালের একটি সমীক্ষা অনুসারে, অ্যালোভেরার নির্যাস বাজারে পাওয়া রাসায়নিকযুক্ত মাউথওয়াশগুলির মধ্যে একটি নিরাপদ এবং কার্যকর । ভিটামিন সি সমৃদ্ধ এই উদ্ভিদ বেস প্রাকৃতিক উপাদান, অর্থাৎ অ্যালোভেরা জেল মাড়ির ফোলাভাব এবং মাড়ি থেকে রক্তপাত থেকে মুক্তি দেয়। জলের সঙ্গে অ্যালোভেরার রস মিশিয়েও গার্গল করতে পারেন।

7. যকৃতের উন্নতি

আপনার সামগ্রিক স্বাস্থ্য আপনার সুস্থ লিভার ফাংশন উপর নির্ভর করে। অ্যালোভেরার রস আপনার লিভারকে সুস্থ রাখার একটি দুর্দান্ত উপায়। এর কারণ হল যখন আপনার শরীর পর্যাপ্ত পরিমাণে পুষ্ট এবং হাইড্রেটেড থাকে তখন লিভার সবচেয়ে ভাল কাজ করে। হাইড্রেটিং এবং ফাইটোনিউট্রিয়েন্ট সমৃদ্ধ, অ্যালোভেরার জুস লিভারের জন্য একটি আদর্শ পানীয়।

আরও ডাউনলোড করুনঃ চিকিৎসা বিষয়ক বই PDF